TT Ads

রাশিয়ার বিরুদ্ধে কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপের ঘটনায় পশ্চিমাদের হুঁশিয়ারি করে দিয়েছেন বেলারুশের প্রেসিডেন্ট আলেক্সান্ডার লুকাশেঙ্কো। তিনি বলেন, এমন পদক্ষেপ রাশিয়াকে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধের দিকে ঠেলে দিতে পারে।

রোববার (২৭ ফেব্রুয়ারি) তিনি বলেন, ব্যাংক খাত, গ্যাস, তেল, সুইফটের বিরুদ্ধে অনেক কথা শোনা যাচ্ছে। যুদ্ধের চেয়ে যা আরও ক্ষতিকর। এসব পদক্ষেপ রাশিয়াকে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধে ঠেলে দিতে পারে।
রাশিয়ার ব্যাংক খাতকে নিষেধাজ্ঞার লক্ষ্যবস্তু বানিয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন, যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডা। তারা মস্কোকে আন্তর্জাতিক লেনদেন ব্যবস্থা সুইফট থেকে বের করে দিতে চাচ্ছে। লুকাশেঙ্কো বলেন, অতীতে এসব পদক্ষেপকে যুদ্ধ ঘোষণা হিসেবে বিবেচনা করা হতো।

বেলারুশের নেতা বলেন, সীমান্ত দেশগুলোতে যদি পশ্চিমারা পরমাণু অস্ত্র স্থাপন করে, তবে বেলারুশেও পরমাণু বোমা ফিরিয়ে দেওয়া হবে।

এদিকে ইউক্রেন ও রাশিয়ার মধ্যে সোমবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। রোববার (২৭ ফেব্রুয়ারি) ইউক্রেনের উপ-স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ইভজেনি ইয়ানেন বলেন, স্থানীয় সময় সোমবার সকালে দুই দেশের প্রতিনিধিরা বৈঠকে বসবেন।

প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেন, বেলারুশের প্রেসিডেন্ট আলেক্সান্ডার লুকাশেঙ্কো রোববার সকালের দিকে তাকে ফোন দিয়েছিলেন। এ সময়ে কোনো ধরনের পূর্বশর্ত ছাড়াই ইউক্রেন-বেলারুশের সীমান্তের প্রিপায়েত নদীর কাছে বৈঠকে বসতে রাজি হওয়ার কথা জানানো হয়েছে।

ইউক্রেনের প্রতিনিধিদের ভ্রমণের সময় বেলারুশ ভূখণ্ডের সব বিমান, হেলিকপ্টার ও ক্ষেপণাস্ত্র যে অবস্থায় আছে, সে অবস্থায়ই থাকবে।

এদিকে রাশিয়া ও ইউক্রেনের প্রতিনিধিদের বৈঠক কোথায় অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে, তা নিয়ে কিছুটা বিভ্রান্তি রয়েছে। মস্কোতে আল-জাজিরার প্রতিবেদক ডোরসা জাবারি বলেন, ইউক্রেন-বেলারুশের সীমান্তে বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। কিন্তু রাশিয়ানরা বলছেন, তারা মনে করেন, বেলারুশের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর গোমেলে বৈঠক হবে।

রাশিয়ার সঙ্গে আলোচনায় বসতে বেলারুশের গোমেল শহরে পথে রয়েছেন ইউক্রেনের প্রতিনিধিরা। রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সহযোগী ও প্রতিনিধি দলের প্রধান ভ্লাদিমির মেডিনস্কি এমন দাবি করেছেন।

TT Ads

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *